জলপাই টক মিষ্টি আচার ( Jolpai Achar)

জলপাই টক মিষ্টি আচার ( Jolpai Achar)

জলপাই টক মিষ্টি আচার ( Jolpai Achar)

বাজারে সুন্দর নাদুস নুদুস জলপাই। দেখে লোভ সামলানো দায় তাই কিনেই ফেল্লাম আচার বানাবো। ভাবাও সারা করাও সারা। এখন শুধু তেলের মধ্যে হাবুডুবু খাওয়াব। কেমন হলো বন্ধুরা বলো বলো। জলপাই এর আচার সেই মজা লাগে। তোমাদের???
সবার সুবিধার্থে  রেসিপি এখানে দিলাম ।

উপকরন :

জলপাই ২ কেজি,
শরিষারতেল আধা কেজি,
চিনি বা গুড় সবাদমত,
শুকনামরিচ ৫/৬ টা,
রশুনের কোয়া আধা কাপ,
আদা কুঁচি ও আদা বাটা টে- চামুচের ১ চামুচ করে,
শুকনামরিচ গুড়া, হলুদগুড়া, জিরারগুড়া, ধনেগুড়া টে- চামুচের ১ চামুচ করে,
পাঁচফোড়নের ভেজে গুড়া টে- চামুচের ২ চামুচ ,
লবন সবাদমত।

প্রনালী :
জলপাই পানি দিয়ে ধুয়ে বোটা ছিড়ে সেদ্ধ করে পানি শুকিয়ে নিন। একটু ঠানডা হলে জলপাই এর বিচি ফেলে দিন এবারে কড়ায়ে তেল দিয়ে গরম হলে শুকনা মরিচ সহ সমস্ত মশল্লা দিয়ে সেদ্ধ জলপাই দিয়ে দিন। কিছুক্ষণ ভাজা ভাজা করে নিন। জলপাই এর গায়ের পানিটা শুকাবে চিনি বা গুড় দিলে আচারে পানি কাটবে। এবারে চিনি বা গুড় দিয়ে ভালো করে নেড়ে নেড়ে চিনি গলিয়ে দিন। দেখবেন আচারে পানি কাটবে নরম , পাতলা হয়ে গেছে। জ্বাল কম করে বসিয়ে রাখুন। যখন ঘন হয়ে আসবে ও পানির ভাবটা থাকবে না তেল বের হয়ে আসবে তখন বড় থালাতে ঢেলে রোদে ২/১ দিন রাখুন আর কাঠের নাকুড় দিয়ে নেড়নেড় দিন। তারপর হাত দিয়ে জলপাই এর আকারে বা গোল বল বানিয়ে কাঁচের বয়মে একটা একটা করে দিয়ে দিন এবারে পরিমান মত শরিষারতেল কড়ায়ে জ্বাল দিয়ে ঠানডা করে আচারের বয়মে ঢেলে দিন। আচার যেন তেলের নিচে থাকে। তাহলে সারা বছরেও আচারে ফাঙ্গাস পড়বে না। গুড়া পাঁচফোড়ন বয়মের মধ্যে দিয়ে দিন আলাদা একটা ঘ্রাণ বের হবে।

তৈরি হয়ে গেলো জলপাই এর টক,মিষ্টি আচার রোদে রেখে দিন কিছুদিন তা হলে আচার মজবে ভালো। এই জলপাই এর আচার সারা বছরই ভালো থাকে। ধন্যবাদ।