ডিম পোচের দোপিঁয়াজা

ডিম পোচের দোপিঁয়াজা

ডিম পোচের দোপিঁয়াজা (Dopiaza)

উপকরণ:
১) ডিম মানুষ গুনে
২) পিঁয়াজ ২ কাপ কুচি
৩) অাদা বাটা, রসুনবাটা, ১ চা, চামচ করে।
৪) মরিচ গুড়া ২ চা, চামচ, কাঁচা মরিচ ৮/১০ টা ফালি করে কাটা।
৫) তেল প্রায় এক কাপ লাগবে যদি ডিম বেশি হয়।
৬) ধনেগুড়া ১ চা, চামচ
৭) হলুদ গুড়া ২ চা, চামচ
জিরা হাফ চামচ,
৮) একটা ফ্রাইংপ্যান

প্রণালী:
প্রথমে একটা বড় বোলে পিঁয়াজ কুচি অার সব মশলা ও সরি একটা জরুরি জিনিষ সেটা হলো লবণ দিয়ে মশলা গুলো ভাল করে হাত দিয়ে চটকিয়ে নিবেন। তার অাগে অবশ্য হাত ধুয়ে নিবেন ভাল করে।

কাঁচা মরিচ বেশি মনে হচ্ছে?? বাবা সবাই কপালে চোখ তুলে ফেলেছে।

যারা ঝাল কম খায় তারা কম দিবে আর যারা ঝাল বেশি খাই তারা বিন্দাজ হয়ে ঝাল দিবে। ঝাল ঝাল খুব মজা লাগে।
এবার চুলায় আগুন জালাও ফ্রাইংপ্যান চাপাও গরম হতে দাও এবার তেল দিবে কারন তেলটা গরম হয়ে গেছে। তারপর বসে থেকো না খুব সাবধানে মাখানো পিঁয়াজ আর মশলা দিয়ে রাখা আছে সেটা দিয়ে দাও।

এবার নাড়ো হালকা ব্রাউন হলে পিঁয়াজ গুলো সাইজ করে একটা করে ডিম ভেংগে দাও, একটু পর পর দিবে সাথে সাথে দিবে না। সব ডিম দেয়া হলে চুলার জাল কমিয়ে ঢাকনা দাও। আর নাড়বে না। কিচেন থেকে বেরিয়ে যাও ১০ মিনিট পর ওর সাথে দেখা করো কুসুম গুলো শক্ত হয়ে যাবে তখন বুঝবে ডিমের দোপিঁয়াজা রেডি। চমৎকার ডিসে বেরে নাও তারপর পরিবেশন করো.. খেতে খুব মজা আর ঝট পট হয়ে যায় ঝামেলা নাই। যে বাচ্চা ডিম খাই না সেও খাবে। আমার দুই মেয়ে ওদের বাবার খুব প্রিয় খাবার। এটা পোলাউয়ের সাথে খিচুড়ির সাথে এবং গরম ভাতে ও কম যায় না। ধন্যবাদ সবাইকে।
ভাল থাকবে।