ইলিশ পোলাও (Ilish Polao)

ইলিশ পোলাও (Ilish Polao)

ইলিশ পোলাও (Ilish Polao)
৬ জনের জন্য

উপকরণ:
১. ইলিশ মাছ – ১টি
২. পোলাও এর চাল -১ ১/২ (দেড়) কেজি
৩. বাংলা কুটির বিরিয়ানি মশলা – ১ চা: চা:
৪. এলাচি -২ টি
৫. দারুচিনি -২টি (ছোট)
৬. লবঙ্গ – ২টি
৭. পেঁয়াজ কুচি – ১ ১/২(দেড়) কাপ
৮. পেঁয়াজবাটা – ১ চা: চা:
৯. আদা(বাটা) ১ চা: চা:
১০. দুধ ১ কাপ (তরল)
১১. কিসমিস – ১০০ গ্রাম
১২. আলু বোখারা -১০০ গ্রাম
১৩. লবন স্বাদমত (২ চা: চা)
১৪. পানি -২ লিটার
১৫. তেল -১/২ লিটার ( ২ কাপ)
১৬. ঘি -৪ টে: চা:
১৭. কাঁচামরিচ- ৮-১০টি
১৮ পেস্তা – বাদাম(কুঁচি) – ১০০ গ্রাম
১৯. তেজপাতা – ২টি
২০. রিগার্ডের কেওড়া জল ৩-৪ ফোঁটা

প্রণালী:

ইলিশ মাছটিকে কেটে ধুয়ে পরিস্কার করে পিস পিস করে ৮, ৯ ও ১৩ নং উপকরণ দিয়ে মেখে ঘন্টা খানেক রেখে দিতে হবে। ১ ঘন্টা পর – চুলায় ১টিবড় কড়াই(দেড় কেজির পাত্র) বসিয়ে ১ কাপ তেলে ১/২ কাপ পেঁয়াজ কুঁচি দাগানী ( বেরেস্তা )করে ছাকনি বা ঝাঁঝর দিয়ে ছেঁকে অন্য একটি পাত্রে তুলে রাখতে হবে,তারপর তাতে ১টি দারুচিনি ১টি লবঙ্গ দিয়ে মসলা মাখানো মাছের পিসগুলো ছেড়ে ঢাকনা দিয়ে দিতে হবে এবং কিছুক্ষণ পর পর কড়াই ঢুলিয়ে দিতে হবে, তেল মাছের উপর উঠে এলে চুলা বন্ধ করে দিতে হবে। মাছ ঠান্ডা হয়ে আসলে মাছগুলো একটি পাত্রে সাবধানে তুলে রাখতে হবে যেন না ভাঙ্গে। এবার পাত্রটি (মাছের মসলাসহ) আবার চুলায় বসিয়ে স্বাদমত লবন, বাকী ১ কাপ তেল,দারুচিনি , তেজপাতা, লবঙ্গ ও ১কাপ পেঁয়াজ কুচি দিয়ে কিছুক্ষণ নাড়াচাড়া করে পোলাও এর চাল এবং ১১ ও ১২ নং উপকরণ দিয়ে দিতে হবে এবং ভাল করে কষাতে হবে (৫ মি:)। তারপর পানি দিয়ে ঢাকনা দিয়ে দিতে হবে, চুলার আঁচ স্বাভাবিক থাকবে। মাঝে ঢাকনা খুলে নাড়া দিতে হবে। চাল ভাল করে ফুটে গেলে আঁচ কমিয়ে দিতে হবে, এবং ৩ ও ৪ নং উপকরণ দিয়ে ভালো করে উল্টে দিতে হবে।
এবার অর্ধেক পোলাও একটি বোলে তুলে ফেলতে হবে এবং সেখানে কয়েকটি ইলিশ মাছের পিস বিছিয়ে দিতে হবে ও তার উপর বোলে তুলে রাখা পোলাও এর অর্ধেকটা সুন্দর করে ছড়িয়ে দিতে হবে,আবার তার উপর বাকী ইলিশ মাছের পিস বিছিয়ে দিতে হবে এবং বোলের বাকী অর্ধেক পোলাও আগের মত ছড়িয়ে দিতে হবে, এরপর ১ কাপ দুধে রিগার্ডের কেওড়ার জল মিশিয়ে পোলাও এর উপর ছড়িয়ে দিতে হবে এবং ১৬ ও ১৭ নং উপকরণ দিয়ে আঁচ কমিয়ে দমে দিতে হবে ( ১ ঘন্টা)।

পরিবেশন:
১ ঘন্টা পর একটি পরিবেশন পাত্রে খুব সবধানে পোলাও বাড়তে হবে যেন মাছ ভেঙ্গে না যায়। বাড়ার পর পোলাও এর উপর পেস্তা – বাদাম (কুঁচি) ও দাগানী ছড়িয়ে দিয়ে গরম গরম পরিবেশন করতে হবে।